বোল্ট ও সাউদির কাছেই ৫৮ রানে অলআউট ইংল্যান্ড

ক্রিকেট খেলা

ইডেন পার্কে মুখোমুখি স্বাগিতক নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। অথচ প্রথম ইনিংসে এক সেশনও ব্যাট করতে পারেনি ইংল্যান্ড। মাত্র ২০.৪ ওভারে তারা ৫৮ রানে অলআউট। ১০.৪ ওভার বোলিং করেই টেস্টে নিজের সেরা ফিগার (৬/৩২) তুলে নিয়েছেন বোল্ট। সাউদিও ১০ ওভার বোলিং করে ২৫ রানে নিয়েছেন ৪ উইকেট। টেস্ট ইতিহাসে এ নিয়ে মাত্র ১৫তমবারের মতো মাত্র দুজন বোলারের কাছেই গুটিয়ে গেল গোটা প্রতিপক্ষ!

১৯৫৫ সালে অকল্যান্ডের ইডেন পার্কে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মাত্র ২৬ রানে গুটিয়ে যায় নিউজিল্যান্ড। যা এখনও টেস্টের সর্বনিম্ন রানের রেকর্ড। ৫ যুগ পর সেই একই মাঠে লজ্জাটা ইংলিশদের ফিরিয়ে দিচ্ছিলেন কিউইরা। তবে হয়েও হয়নি। লজ্জার রেকর্ড না হলেও ২৭ রানে ৯ উইকেট খুইয়ে নিজেদের সর্বনিম্ন রানের লজ্জাটা চোখ রাঙাচ্ছিল ইংল্যান্ডকে। তাও সাফল্যের মুখ দেখেনি। ১৮৮৭ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিডনিতে ক্রিকেট ইতিহাসে সর্বনিম্ন ৪৫ রান করেন ইংলিশরা। ৯ নম্বরে নেমে ২৫ বলে ৩৩রানের ইনিংস খেলে সেই লজ্জা এড়িয়েছে জো রুটের দল।

প্রথম দিনের খেলা শেষে ৬৯ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে ১৭৫ রান করে ১১৭ রানের লিড দিয়েছে নিউজিল্যান্ড। কেইন উইলিয়ামসন ৯১ রানে ও হেনরি নিকোলাস ২৪ রানে অপরাজিত।

Leave a Reply

Your email address will not be published.