বিজ্ঞানের প্রাণপুরুষ স্টিফেন হকিং আর নেই

মহাবিশ্ব সৃষ্টির রহস্য ‘বিগ ব্যাং থিওরি’র প্রবক্তা বিশ্ববিখ্যাত পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন উইলিয়াম হকিং ১৪ মার্চ বুধবার সকালে যুক্তরাজ্যের ক্যামব্রিজে তাঁর নিজ বাড়িতে  মারা গেছেন। মৃত্যুর সময় তাঁর বয়স ছিল ৭৬ বছর। তাঁর পরিবারের সদস্যদের বরাতে এ তথ্য প্রকাশ করেছে বিবিসি অনলাইন।

স্টিফেন হকিং পৃথিবীর সেরা মহাকাশবিজ্ঞানীদের একজন। তাঁর লিখা ‘আ ব্রিফ হিস্ট্রি অব টাইম’ সর্বকালের সবচেয়ে বেশি বিক্রি হওয়া বইয়ের একটি। ব্রিটিশ এই বিজ্ঞানী কৃষ্ণ গহ্বর বা ব্ল্যাকহোল এবং আপেক্ষিকতা তত্ত্ব নিয়ে তাঁর কাজের জন্য তিনি বিশ্বজুড়ে সুপরিচিত।

স্টিফেন হকিংয়ের তিন সন্তান। তাদের নাম লুসি, রবার্ট ও টিম। তাঁরা বলেছেন, ‘আমরা গভীর শোকের সঙ্গে জানাচ্ছি যে আমাদের প্রিয় বাবা আজ মারা গেছেন। তিনি বিখ্যাত এক বিজ্ঞানী ছিলেন। তাঁর কাজ দীর্ঘদিন বেঁচে থাকবে।’ স্টিফেন হকিংয়ের সাহস ও অধ্যাবসায়ের প্রশংসা করে তাঁর সন্তানেরা বলেন, ‘হকিংয়ের প্রতিভা এবং রসবোধ বিশ্বব্যাপী মানুষকে অনুপ্রেরণা জোগাবে। তিনি চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন।’

৮ জানুয়ারি ১৯৪২ সালে ইংল্যান্ডের অক্সফোর্ডে জন্ম নিয়েছিলেন পদার্থবিদ্যার ইতিহাসে অন্যতম সেরা তাত্ত্বিক স্টিফেন হকিং।দুরারোগ্য মোটর নিউরন ব্যাধি ছিল স্টিফেন হকিংয়ের। কিন্তু শারীরিক অক্ষমতা তাঁকে রুখতে পারেনি। আইনস্টাইনের পর হকিংকেই কিংবদন্তি পদার্থবিদ হিসেবে গণ্য করা হয়।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *