রংপুরে নদী থেকে বালু তুলতে গিয়ে মিলেছে ‘ট্যাংক’-সদৃশ বস্তু

রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলায় নদী থেকে বালু তুলতে গিয়ে মিলেছে ‘ট্যাংক’-সদৃশ বস্তু। করতোয়া নদীর কাচদহ ঘাটে ২৭ এপ্রিল এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয় লোকজন পরিত্যক্ত ট্যাংক-সদৃশ বস্তুটির সন্ধান পায়।

ট্যাংক-সদৃশ বস্তুটির সন্ধান পাওয়ার খবরে স্থানীয় লোকজনের মধ্যে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। বস্তুটি দেখার জন্য  শুক্রবার সন্ধ্যায় এলাকার অসংখ্য মানুষ করতোয়া নদীর তীরে ভিড় জমায়।

প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে এটি একটি ট্যাংক। মুক্তিযুদ্ধের সময় ভারতীয় মিত্রবাহিনী পাকিস্তানি বাহিনীর বিরুদ্ধে ব্যবহারের উদ্দেশ্যে ট্যাংকটি পার করার সময় নদীতে তা আটকা পড়ে।

স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা ও ট্যাংক আটকে পড়া ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীদের কাছ থেকে জানা যায়, এটি আসলে একটি ট্যাংক। যুদ্ধের সময় কোনো একদিন দুপুরে কয়েকটি ট্যাংক ওই নদী দিয়ে পার করা হচ্ছিল। তখন একটি ট্যাংক কাচদহ ঘাটে আটকে পড়ে। তিন দিন পর্যন্ত ট্যাংকটি চালু অবস্থায় ছিল। এ সময় ভারতীয় সেনারা লোহার শিকল দিয়ে অনেক টানাটানি করেও তুলতে পারেনি ট্যাংকটি। পরে তা নদীতে ফেলেই চলে যায় তারা।

পীরগঞ্জের ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক এনামুল হাবিব  ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। শুক্রবার সন্ধ্যায় ডিজিএফআইয়ের একটি দল ঘটনাস্থলে গেছে। এটি উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। নদীতে পানির নিচে লম্বাকৃতির লোহার বস্তুটি ট্যাংক কি না, তা উদ্ধারের পরই নিশ্চিত হওয়া যাবে।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *