শতাব্দীর দীর্ঘতম পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ জুলাই মাসে

প্রকৃতি ও পর্যটন

সময়ের হিসেবে শতাব্দীর দীর্ঘতম পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ দেখা যাবে আগামী ২৭ জুলাই। যার আগে ও পরে হবে আংশিক চন্দ্রগ্রহণও। ওই দুই দিন দেখা যাবে ‘ব্লাড মুন’ বা রক্তাভ চাঁদও।

টানা ১ ঘণ্টা ৪৩ মিনিট ধরে চাঁদের মুখ ঢেকে যাবে পুরোপুরি। গত ১০০ বছরে এই প্রথম। তার আগে ১ ঘণ্টা ৬ মিনিট ধরে চলবে আংশিক চন্দ্রগ্রহণ। আবার পূর্ণগ্রাস হয়ে যাওয়ার পর শুরু হবে আংশিক গ্রহণ, যা চলবে আরও ১ ঘণ্টা ৬ মিনিট ধরে।

পূর্ণ আর আংশিক চন্দ্রগ্রহণ মিলে টানা ৪ ঘণ্টা ধরে আলো-আঁধারিতে ঢাকা থাকবে চাঁদ।

জ্যোতির্বিজ্ঞানীরা বলছেন, আগামী ২৭ জুলাই (বাংলাদেশ সময়)দিবাগত রাত ১২.২৪ মিনিটে শুরু হবে আংশিক চন্দ্রগ্রহণ। চলবে রাত ১টা পর্যন্ত। তারপর রাত ১টা ৩০ মিনিট নাগাদ শুরু হবে শতাব্দীর দীর্ঘতম পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ। শেষ হবে রাত ৩.১৩ মিনিটে। রাত ৩.১৩ মিনিট থেকে আবার শুরু হবে আংশিক গ্রাস, যা শেষ হবে রাত ৪.১৯ মিনিটে।

এশিয়া, আফ্রিকা, অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড ও ইউরোপের মানুষরা এই দীর্ঘতম পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ দেখতে পারবেন।

এই সুপার ব্লু ব্লাড মুনটি নিয়ে আলোচনা এবংব্যপক উৎসাহ পুরো বিশ্বজুড়ে। এমনকি নাসাও এ’নিয়ে তাঁদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে ব্যপক উৎসাহ প্রকাশ করেছে। জানা গেছে, তাঁরা এই চন্দগ্রহণটিকে লাইভ- স্টিমিং করে দেখাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.