৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত বৈধ অস্ত্র বহন ও প্রদর্শন নিষিদ্ধ

খবর সমগ্র বাংলাদেশ

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল জানিয়েছেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে বৈধ অস্ত্র আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কাছে জমা দেওয়ার প্রয়োজন নেই। তবে একাদশ জাতীয় নির্বাচন ঘিরে আগামী ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত বৈধ লাইসেন্সধারী অস্ত্র মালিকরা নিজেদের সঙ্গে তাদের অস্ত্র বহন করতে পারবেন না।

সচিবালয়ে একদশ জাতীয় নির্বাচন উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত এক জরুরি সভা শেষে বুধবার বিকালে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন, আমাদের আইনমৃঙ্খলা বাহিনী অত্যন্ত দক্ষ এবং প্রশিক্ষিত। যে কোনও নাশকতা মোকাবেলা এবং তা দমনে যোগ্য। কেউ যদি সন্ত্রাস সৃষ্টি করে ফায়দা লোটার চেষ্টা করে, তা কঠোর হাতে দমন করা হবে। নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনা মোতাবেক আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী কাজ করছে।

তিনি বলেন,  যারা একাদশ সংসদ নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছেন, তাদের মধ্যে যাদের বৈধ লাইসেন্সের অস্ত্র রয়েছে, তারা নিরাপত্তার প্রয়োজনে নিজেদের কাছে অস্ত্র রাখতে পারবেন। কিন্তু প্রদর্শন করতে পারবেন না।

নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার এবং বৈধ অস্ত্রের ব্যবহার সংক্রান্ত নির্দেশনা সংবলিত প্রজ্ঞাপন আগামী দু’এক দিনে জারি করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.